•  জ্যৈষ্ঠ১৪২৯  - সোমবার, মে ২৩, ২০২২

ফারইস্ট লাইফের শেয়ারের অস্বাভাবিক দাম

ফারইস্ট লাইফের শেয়ারের অস্বাভাবিক দাম

নিজস্ব প্রতিবেদক : মাত্র সাত কার্যদিবসে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত জীবন বীমা কোম্পানি ফারইস্ট ইসলামী লাইফ ইন্স্যুরেন্সের শেয়ার দাম বেড়েছে ৫০ শতাংশ। প্রতিষ্ঠানটির শেয়ারের এ দাম বাড়াকে অস্বাভাবিক বলছে ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ (ডিএসই) কর্তৃপক্ষ।

এ জন্য সোমবার (১০ জানুয়ারি) দেশের প্রধান শেয়ারবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জ থেকে বিনিয়োগকারীদের সতর্ক করে জানানো হয়েছে— ফারইস্ট ইসলামী লাইফের শেয়ার দাম বাড়ার পেছনে কোনো অপ্রকাশিত মূল্য সংবেদনশীল তথ্য নেই।

কোম্পানিটির শেয়ারের অস্বাভাবিক দাম বাড়ার কারণ জানাতে ডিএসই থেকে ৯ জানুয়ারি নোটিশ পাঠানো হয়। জবাবে কোম্পানিটির কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, সম্প্রতি শেয়ারের যে অস্বাভাবিক দাম বেড়েছে তার জন্য কোন অপ্রকাশিত মূল্য সংবেদনশীল তথ্য নেই।

সমস্যার মধ্যে পতিত হওয়া প্রতিষ্ঠানটি সর্বশেষ ২০২০ সালে বিনিয়োগকারীদের কোন ধরনের লভ্যাংশ দিতে পারেনি। তার আগে ২০১৯ সালে ১০ শতাংশ নগদ, ২০১৮ সালে ২০ শতাংশ নগদ এবং ২০১৭ সালে ২৫ শতাংশ নগদ লভ্যাংশ দেয় কোম্পানিটি।

তথ্য পর্যালোচনায় দেখা যায়, গত ২৯ ডিসেম্বর কোম্পানিটির প্রতিটি শেয়ার দাম ছিল ৫০ টাকা। যা টানা বেড়ে এখন ৭৫ টাকায় উঠে এসেছে।

শেয়ারের এমন দাম বাড়া কোম্পানিটি ২০০৫ সালে পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত হয়। সম্প্রতি কোম্পানিটি থেকে নজিরবিহীন লুটপাটের তথ্য বেরিয়ে এসেছে। যার পরিপ্রেক্ষিতে গত বছরের ১ সেপ্টেম্বর কোম্পানিটির পরিচালনা পর্ষদ ভেঙে দেয় পুঁজিবাজারের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি)। পর্ষদ ভেঙে দেওয়ার পাশাপাশি প্রতিষ্ঠানটিতে ১০ জন স্বতন্ত্র পারিচালক নিয়োগ দেওয়া হয়।

বিএসইসি থেকে এমন পদক্ষেপ নেওয়ার ১৫ দিনের মাথায় কোম্পানিটির মূখ্যনির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) পদ থেকে হেমায়েত উল্লাহকে বহিষ্কার করে বিমা খাতের নিয়ন্ত্রক সংস্থা বিমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষ (আইডিআরএ)।

অন্যান্য
ভ্রমন